মুঘল পরবর্তী সময়ে কয়েকটি আঞ্চলিক শক্তির বিকাশ - মহীশূর || Regional Uprising In The Later Mughal Period - Mysore


হায়দার আলী :1721 খ্রিস্টাব্দে বুদি কোটে এক অতি সাধারণ পরিবারে হায়দার আলী জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা ফতে মোহাম্মদ বিভিন্ন স্থানে ভাড়াটিয়া সৈনিক হিসেবে কাজ করতেন। 1755 খ্রিস্টাব্দে তিনি দিন্দিগুল এর ফৌজদার নিযুক্ত হন। 1761 খ্রিস্টাব্দে প্রধানমন্ত্রী নঞ্জরাজকে ক্ষমতাচ্যুত করেন ও মহীশূরের হিন্দু রাজা কে নজরবন্দি করে তিনি রাজ্যের সর্বেসর্বা হয়ে ওঠেন। 1767 খ্রিস্টাব্দে হায়দার প্রথম ইঙ্গ-মহীশূর যুদ্ধে নিজাম, মারাঠা এবং ইংরেজদের মিলিত বাহিনীর সম্মুখীন হন। তিনি সুকৌশলে মারাঠা ও নিজামকে ইংরেজ পক্ষত্যাগে বাধ্য করেন। 1769 খ্রিস্টাব্দে হায়দার অতর্কিতে সসৈনে মাদ্রাজে উপস্থিত হলে ইংরেজ কর্তৃপক্ষ হায়দার আলী প্রদত্ত শর্তে মাদ্রাজের সন্ধি স্বাক্ষরে বাধ্য হন। 1781 খ্রিষ্টাব্দে হায়দার পোর্টোনোভোর যুদ্ধে ইংরেজ সেনাপতি স্যার এয়ার কুটের কাছে পরাজিত হন। অপরদিকে হায়দারের পুত্র টিপু সুলতান তাঞ্জোরের যুদ্ধে ইংরেজ সেনাপতি ব্রেথওয়েটকে সম্পূর্ণ রূপে পরাজিত করেন । 1782 খ্রিষ্টাব্দে দ্বিতীয় ইঙ্গ- মহীশূর যুদ্ধ চলাকালে হায়দারের মৃত্যু ঘটে।

টিপু সুলতান : কানাড়ি ভাষায় টিপু কথার অর্থ বাঘ। ইংরেজরা তাকে 'শের–ই–মহীশূর' উপাধি দিয়ে ছিলেন। 1780 খ্রিষ্টাব্দে শুরু হওয়া দ্বিতীয় ইঙ্গ-মহীশূর যুদ্ধ টিপু সুলতান 1784 খ্রিস্টাব্দ পর্যন্ত বীর বিক্রমে লড়ে যান। অবশেষে 1784 খ্রিস্টাব্দের ম্যাঙ্গালোরের সন্ধি দ্বারা এই যুদ্ধের সমাপ্তি ঘটে। কর্ণওয়ালিশ নিজামের কাছে ইংরেজদের মিত্র রাজ্যের একটি তালিকা দেন । এই তালিকায় মহীশূরের নাম ছিলনা । 1789 খ্রিষ্টাব্দে ক্রুদ্ধ টিপু ইংরেজদের মিত্র রাজ্য ত্রিবাঙ্কুর আক্রমন করলে তৃতীয় ইঙ্গ মহীশূর যুদ্ধ শুরু হয়। নিজাম ও মারাঠা ইংরেজ পক্ষে যোগদান করে। দু বছর পর টিপু পরাজিত হন। 1792 খ্রিষ্টাব্দে তিনি শ্রীরঙ্গপত্তমের সন্দ্ধি করতে বাধ্য হন। হৃত গৌরব ফিরে পাওয়ার জন্য তিনি ফরাসিদের ঘনিষ্ঠ হন এবং ফ্রান্সের জ্যেকবিন ক্লাবের সদস্য হন । 1799 খ্রিস্টাব্দে ওয়েলেসলির অধীনতা মূলক মিত্রতা নীতি প্রত্যাখ্যান করলে ইংরেজ ও নিজামের যুগ্ম বাহিনী মহীশূর আক্রমণ করে  (চতুর্থ ইঙ্গ-মহীশূর যুদ্ধ)। সদাশির ও মলভেরির যুদ্ধে পরাজিত হয়ে তিনি রাজধানী শ্রীরঙ্গপত্তমে আশ্রয় নেন এবং সেখানে তার মৃত্যু হয়।

No comments:

Post a Comment

Note: only a member of this blog may post a comment.